কক্সবাজার, শুক্রবার, ২০ মে ২০২২

শিরোনাম

চকরিয়ায় ইউপি সচিবকে মারধর করেছে আওয়ামী লীগ নেতা


প্রকাশের সময় :১৬ নভেম্বর, ২০২১ ১১:১০ : অপরাহ্ণ
চকরিয়া প্রতিনিধিঃ
কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার হারবাং ইউনিয়ন পরিষদের সচিবকে তার কর্তব্যে বাঁধা প্রদান পূর্বক মারধর করেছে স্থানীয় স্বাস্থ্য কর্মী ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের  সাধারণ সম্পাদক নাছির উদ্দীন।
ঘটনাটি ঘটেছে গত মঙ্গলবার সকালে হারবাং ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডে প্রনব দাশ নামক এক চাল ডিলারের দোকানের সামনে।
ঘটনার শিকার ইউপি সচিব সালাউদ্দিন কাদের বাদী হয়ে চকরিয়া থানায় এজাহার দায়ের করেন। উক্ত এজাহারের ভিত্তিতে রবিবার রাতে স্থানীয় কবির হোসনের পুত্র হারবাং ইউনিয়নের পরিবার পরিকল্পনা পরিদর্শক নাছির উদ্দীনকে  আসামী করে থানায় মামলা রুজু হয়।
হারবাং ৪ নং ওয়ার্ডের ১০ টাকার চাল বিতরণকারী ডিলার প্রনব দাশের চাল বিতরণ কার্যক্রম পরিদর্শনে যান ইউপি সচিব সালাহ উদ্দিন কাদের। স্থানীয় স্বাস্থ্য কর্মী নাছির উদ্দীন সেখানে উপস্থিত হয়ে, জনৈক আবদুল হাকিমের চাল আহরণ কার্ড হারিয়ে গেছে মর্মে অভিযোগ করে তৎক্ষনাৎ কার্ডটি করে দেওয়ার জন্য সচিবকে চাপ দেন, প্রতি উত্তরে সচিব থানায় জিডি করে ও ইউএনও এর স্বাক্ষরিত রি-ইস্যু কার্ড ছাড়া সম্ভব নয় বলার সাথে সাথে আওয়ামী লীগ নেতা নাছির উদ্দীন ইউপি সচিবকে মারধর করতে থাকে। এলাকাবাসী এগিয়ে এসে সচিবকে উদ্ধার করে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভর্তি করান।
মামলার লিখিত আর্জিতে আরও জানা যায়,ঘটনার দিন ঐ স্বাস্থ্য কর্মী সচিবের পকেটে থাকা জন্ম নিবন্ধের সরকারি ফি বাবদ ২২,৩০০ টাকা ও তার ব্যবহ্রত ২৫ হাজার টাকার মূল্যের মোবাইল সেটও নিয়ে যায়।
হারবাং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মিরানুল ইসলাম জানান, নাছির উদ্দিন সরকারি চাকুরির পাশাপাশি ৪নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, তাই  সে কাউকে পরোয়া করে না। নারী কেলেংকারী, হাসপাতালের গাছ কাটা ও বৃদ্ধ মুক্তিযোদ্ধাকে লাঞ্ছিত করা সহ একাধিক ঘটনায় তার বিরুদ্ধে মামলা রয়েছে। সে চেয়ারম্যানের সাথেও  অসৌজন্যমূলক আচরণ করেন বলে জানান।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা বিধান কান্তি রুদ্র জানান, হারবাং ইউনিয়ন পরিবার পরিকল্পনা পরিদর্শক নাছির উদ্দীনের রাজনীতির সংশ্লিষ্টতা আমরা জানতে পেরেছি, মামলার বিষয়টি এখনো আমাদেরকে কেউ অবহিত করেন নি। যদি ফৌজদারি মামলায় অপরাধী হয়, তাহলে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য লিখিত সুপারিশ পাঠানো হবে।
চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ ওসমান গণি জানান, ইউপি সচিবের উপর হামলার ঘটনায় মামলা হয়েছে, আসামিকে  গ্রেফতারের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।
চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার সৈয়দ শামসুল তাবরীজ বলেন, ইউপি সচিবের উপর হামলার বিষয়টি জানতে পেরেছি, আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

ট্যাগ :