কক্সবাজার, বুধবার, ২০ জানুয়ারী ২০২১

সাংবাদিক জসিমকে হত্যার হুমকি


প্রকাশের সময় :৫ জানুয়ারি, ২০২১ ৯:৩১ : অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক:

দৈনিক সমুদ্রকণ্ঠের চীফ রিপোর্টার ও জাতীয় দৈনিক একুশে পত্রিকার কক্সবাজার প্রতিনিধি জসিম উদ্দিনকে জানে মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছেন টেকনাফের রঙ্গিখালীর বহুল আলোচিত গিয়াস বাহিনীর প্রধান গিয়াস উদ্দিন।

মঙ্গলবার (৫ জানুয়ারি) সন্ধ্যা ০৬.৪৭ টায় ব্যক্তিগত মুঠোফোনে ০১৯৬৬৯২৩৬৭৬ নাম্বার থেকে কল করে ‘হত্যা করবে’ মর্মে হুমকি দেয় বলে জানিয়েছেন জসিম উদ্দিন।

এরপর থেকে তিনি জীবনের নিরাপত্তা শংকায় রয়েছেন।জীবনের নিরাপত্তায় কক্সবাজার সদর মডেল থানায় ডিসি করছেন জসিম।

এ প্রসঙ্গে জসিম উদ্দিন বলেন, আমি একজন সংবাদকর্মী। অনুসন্ধানি সংবাদ আমার নেশা। অপরাধের বিরুদ্ধে আমার কলম সর্বদা চলমান।

সম্প্রতি টেকনাফের রঙ্গিখালীর গিয়াস উদ্দিন প্রকাশ গিয়াস বাহিনীর নানা অপরাধ, অপকর্ম নিয়ে সংবাদ করি। স্থানীয় ও জাতীয় পত্রিকায় ধারাবাহিক অনুসন্ধানি, বস্তুনিষ্ট প্রতিবেদনের কারণে আমার উপর ক্ষুব্ধ হয় সন্ত্রাসী গিয়াস।

বিভিন্ন সময় নানা মাধ্যমে হুমকি পাঠায়।
সর্বশেষ মঙ্গলবার (৫ জানুয়ারি) সন্ধ্যা ০৬.৪৭ টায় তার ব্যক্তিগত মুঠোফোনে ০১৯৬৬৯২৩৬৭৬ নাম্বার থেকে কল করে আমাকে ‘হত্যা করবে’ মর্মে হুমকি প্রদান করে হত্যাসহ বহু মামলার পলাতক আসামি সন্ত্রাসী গিয়াস৷

যার অডিও রেকর্ড আমার নিকট সংরক্ষিত।

সাংবাদিক জসিম উদ্দিন আরো বলেন, আমি জীবনের নিরাপত্তা নিয়ে শংকায় রয়েছি। আমি প্রশাসনের জরুরি হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

এ বিষয়ে টেকনাফ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. হাফিজুর রহমানের নিকট জানতে চাইলে ঘটনার বিষয়ে থানায় দ্রুত ‘জিডি’ করে জিডি নাম্বরটি তাকে দেয়ার পরামর্শ দেন।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিকুল ইসলাম এ বিষয়ে ব্যবস্থা নিচ্ছেন বলে জানান।
উল্লেখ্য, সন্ত্রাসী গিয়াসের বিরুদ্ধে একই পরিবারের ৫ জনকে হত্যা, মাদক, অস্ত্রসহ নানা অভিযোগে দেড় ডজনের বেশী মামলা রয়েছে।

অভিযোগ রয়েছে প্রতিপক্ষের ঘর পুড়িয়ে দেয়ার। তিনি ‘থানার দালাল’ হিসেবে এলাকায় চিহ্নিত। তৎকালীন ওসি প্রদীপ কুমার দাসের সময়কালে গিয়াসের ‘রামরাজত্ব’ চলতো।

মামলা ও অভিযোগের পাহাড়ের পরও ‘রহস্যজনকভাবে’ ধরাছোঁয়ার বাইরে রয়ে গেছেন ‘টেকনাফের ত্রাস’ গিয়াস উদ্দিন।

ট্যাগ :